বৃহস্পতিবার   ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০

সর্বশেষ
শ্রীনগরে আর্থিক কষ্টে মৃৎশিল্পীরা সিরাজদিখানে হাজারো মানুষের ভরসা বাঁশের সাঁকো টঙ্গিবাড়ী উপজেলা ছাত্রদলের পক্ষ থেকে চলছে দোয়া ও বৃক্ষরোপন কর্মসূচী ঝুঁকি নিয়েই ঢাকায় ফিরছে মানুষ উৎসবানন্দে নিঃশঙ্ক চিত্ত জেলার সর্ববৃহৎ বালিগাঁও বাজারে মানুষের উপচে পরা ভির মে পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হতে পারে ৫০ হাজার মানুষ জেলায় লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে সংক্রমিত মুন্সীগঞ্জে চঙ্গ তৈরি করার কারনে পুরো একটি গ্রামের নাম পরিবর্তন কোভিড-১৯ মোকাবেলা চ্যালেঞ্জিং, তবে অসম্ভব নয় - মোঃ শফিকুল ইসলাম জীবনের ঝুঁকি নিয়ে সেবা দিচ্ছেন সংবাদকর্মীরাঃ মৃনাল কান্তি দাস প্রকৃত জনপ্রতিনিধি হিসেবে প্রতীয়মানের এখনই সুযােগঃআবু বকর সিদ্দিক শ্রীনগরে নার্সারীতে বাহারী আমের বাম্পার ফলন বসল পদ্মা সেতুর ২৯তম স্প্যানঃ দৃশ্যমান ৪ হাজার ৩৫০ মিটার করোনা ঝুঁকি নিয়ে কাজ করছে যে সকল গণমাধ্যমকর্মীরা.. জেলার ৭৪টি হিমাগার ৪০ ভাগ ফাঁকা-৮০০ কোটি টাকা লোকসানের শঙ্কা ধেয়ে আসছে কালবৈশাখী ঝড় মুন্সীগঞ্জে বর্ষা মৌসুম সামনে রেখে চলছে চাঁই তৈরীর ধুম ২ মিনিটেই মারা যাবে করোনা ভাইরাস নজরদারি বৃদ্ধি করতে বলা হয়েছেঃ পৌর মেয়র বিপ্লব মুন্সীগঞ্জ জেলা প্রশাসকের কঠোর নির্দেশনা ৯৮ সালে প্রলয়ংকারী বন্যা মোকাবেলার দৃষ্টান্ত তুলে ধরলেনঃমহিউদ্দিন মুন্সীগঞ্জ পৌরসভার প্রতিদিন জীবানু নাশক পনি ছিটান অব্যাহত গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় মারা যাওয়া সবাই ঢাকার আড়িয়ল বিলের মিষ্টি কুমড়া সবচেয়ে সেরা জেলা শহরের বিভিন্ন সড়ক ফাঁকা মুন্সীগঞ্জে আওয়ামী লীগসহ প্রশাসনের নানা আয়োজন মধুচাষে লোকসান টঙ্গীবাড়ীতে ১০০ ছাত্র ছাত্রীদের মাঝে মেধাবৃত্তি প্রদান টিসিবি`র পিয়াজ বিক্রি করতে হেলমেট পরতে হয় না
৬৬৫

মুন্সীগঞ্জের দুই উপজেলার কয়েকটি গ্রাম প্লাবিত

প্রকাশিত: ৫ জুলাই ২০২০  

সুমিত সরকার সুমনঃ পদ্মার পানি বিপদসীমার উপর দিয়ে বইছে। ২৪ ঘণ্টায় ১২ সেন্টিমিটার পানি বৃদ্ধি পেয়ে ভাগ্যকূলে ২০ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। রবিবার (৫ জুলাই) জেলার পানি উন্নয়ন বোর্ড এ তথ্য জানিয়েছে।

মাওয়ায় ১২ সেন্টিমিটার বেড়ে পদ্মার পানি বিপদসীমার ১১ সেন্টিমিটার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এতে পদ্মা অববাহিকার নিম্নাঞ্চলের জনপদগুলো প্লাবিত হয়েছে। চরাঞ্চলের বহু এলাকা জলমগ্ন হয়ে পড়েছে। দ্রত পানি আসার কারণে আমন ধানসহ বহু ফসলের ক্ষতি হয়েছে। টঙ্গীবাড়ি উপজেলার দিঘিরপাড়ে কান্দারবাড়ি-শরিষাবন বাঁধ ভেঙে প্রায় ১শ’ একর জমিতে পানি প্রবেশ করেছে। শ্রীনগর উপজেলার ভাগ্যকূলের আশপাশের নিম্নাঞ্চল এবং জনপদ জলমগ্ন ছাড়াও বন্যাতঙ্ক বিরাজ করছে। পানি উন্নয়ন বোর্ড জানিয়েছে, শনিবার মাওয়ায় পদ্মা পানি বিপৎসীমার ১ সেন্টিমিটার নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছিল। আজ সেটা বেড়েছে। এখানে পদ্মার পানিতে স্রোত মারাত্মক আকার ধারণ করেছে। তাই শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ি নৌরুটে ফেরি চলাচল ব্যাহত হচ্ছে।

পদ্মাতীরে হাসাইল-বানারী, কামারখারা, দিঘিরপাড়, পাঁচগাঁও, সদর উপজেলার শিলই, বাংলাবাজার, আধারা লৌহজং উপজেলার কলমা, লৌহজং-তেউটিয়া, গাঁওদিয়া, হলদিয়া, কনকসার, কুমারভোগ ও মেদিনীমন্ডল এবং শ্রীনগর উপজেলা বাঘরা ও ভাগ্যকূল ইউনিয়নের নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। লৌহজং উপজেলার পাইকরা ও ব্রাহ্মণগাঁও এলাকা ও আশপাশ এলাকা প্লাবিত হয়েছে।

এই বিভাগের আরো খবর