বুধবার   ১৬ জুন ২০২১

সর্বশেষ
শ্রীনগরে আর্থিক কষ্টে মৃৎশিল্পীরা সিরাজদিখানে হাজারো মানুষের ভরসা বাঁশের সাঁকো টঙ্গিবাড়ী উপজেলা ছাত্রদলের পক্ষ থেকে চলছে দোয়া ও বৃক্ষরোপন কর্মসূচী ঝুঁকি নিয়েই ঢাকায় ফিরছে মানুষ উৎসবানন্দে নিঃশঙ্ক চিত্ত জেলার সর্ববৃহৎ বালিগাঁও বাজারে মানুষের উপচে পরা ভির মে পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হতে পারে ৫০ হাজার মানুষ জেলায় লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে সংক্রমিত মুন্সীগঞ্জে চঙ্গ তৈরি করার কারনে পুরো একটি গ্রামের নাম পরিবর্তন কোভিড-১৯ মোকাবেলা চ্যালেঞ্জিং, তবে অসম্ভব নয় - মোঃ শফিকুল ইসলাম জীবনের ঝুঁকি নিয়ে সেবা দিচ্ছেন সংবাদকর্মীরাঃ মৃনাল কান্তি দাস প্রকৃত জনপ্রতিনিধি হিসেবে প্রতীয়মানের এখনই সুযােগঃআবু বকর সিদ্দিক শ্রীনগরে নার্সারীতে বাহারী আমের বাম্পার ফলন বসল পদ্মা সেতুর ২৯তম স্প্যানঃ দৃশ্যমান ৪ হাজার ৩৫০ মিটার করোনা ঝুঁকি নিয়ে কাজ করছে যে সকল গণমাধ্যমকর্মীরা.. জেলার ৭৪টি হিমাগার ৪০ ভাগ ফাঁকা-৮০০ কোটি টাকা লোকসানের শঙ্কা ধেয়ে আসছে কালবৈশাখী ঝড় মুন্সীগঞ্জে বর্ষা মৌসুম সামনে রেখে চলছে চাঁই তৈরীর ধুম ২ মিনিটেই মারা যাবে করোনা ভাইরাস নজরদারি বৃদ্ধি করতে বলা হয়েছেঃ পৌর মেয়র বিপ্লব মুন্সীগঞ্জ জেলা প্রশাসকের কঠোর নির্দেশনা ৯৮ সালে প্রলয়ংকারী বন্যা মোকাবেলার দৃষ্টান্ত তুলে ধরলেনঃমহিউদ্দিন মুন্সীগঞ্জ পৌরসভার প্রতিদিন জীবানু নাশক পনি ছিটান অব্যাহত গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় মারা যাওয়া সবাই ঢাকার আড়িয়ল বিলের মিষ্টি কুমড়া সবচেয়ে সেরা জেলা শহরের বিভিন্ন সড়ক ফাঁকা মুন্সীগঞ্জে আওয়ামী লীগসহ প্রশাসনের নানা আয়োজন মধুচাষে লোকসান টঙ্গীবাড়ীতে ১০০ ছাত্র ছাত্রীদের মাঝে মেধাবৃত্তি প্রদান টিসিবি`র পিয়াজ বিক্রি করতে হেলমেট পরতে হয় না
২৮১

রমজানে রাসূলুল্লাহ (সাঃ) কিভাবে পবিত্র কুরআন তেলাওয়াত করতেন ?

প্রকাশিত: ৩ মে ২০২০  

২য় পাতায় উপরে ডান পাশে
মাঝে ছবি
রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম রমজান ব্যতীত অন্যকোন মাসে এত বেশি কুরআন তেলাওয়াত করতেন না! এ প্রসংঙ্গে নি¤েœ কিছু হাদিস উল্লেখ করা হলো। (১) আম্মাজান হযরত আয়েশা রাদিয়াল্লাহু তা’আলা আনহা থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, রমজান ব্যতীত অন্য কোন রাত্রিতে আমি রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামকে পূর্ণ কুরআন তেলাওয়াত করতে কিংবা ভোর পর্যন্ত নামাজে কাটিয়ে দিতে অথবা পূর্ণমাস রোজা পালন করতে দেখিনি। (সহিহ্ মুসলিম ১ম খন্ড)
(২) প্রিয়নবী হযরত মুহাম্মদ মোস্তফা সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম পবিত্র কুরআন তেলাওয়াতের বর্ণনা করতে গিয়ে হযরত হুযাইফা ইবনুল আওয়াম রাদিয়াল্লাহু তা’আলা আনহু বলেন, একবার আমি হযরত মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এর সঙ্গে রাতে নামাজ আদায় করছিলাম, তিনি খুবই ধীর স্থিরভাবে কুরআন শরীফ তেলাওয়াত করছিলেন, তেলাওয়াতে যখন তাসবীহ্ এর আয়াত আসতো তখন তিনি তাসবীহ্ আদায় করতেন, যখন নেয়ামতের বর্ণনা আসতো, তখন তিনি নিয়ামতের প্রার্থনা করতেন এবং যখন আযাবের আয়াত আসতো, তখন তিনি আজাব থেকে আশ্রয় চাইতেন।
(৩) হযরত আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাস রাদিয়াল্লাহু তা’আলা আনহুমা থেকে বর্ণিত আছে তিনি বলেন, রমজান মাসের প্রতি রাতে জিবরাইল আলাইহিস্সালাম রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের খেদমতে হাজির হতেন, তাঁরা উভয়েই কুরআনুল কারীম তেলাওয়াত করে একে অপরকে শোনাতেন। (বুখারী শরীফ প্রথম খন্ড)
(৪) রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেন “ইকরাউল কুরআনা ফাইন্নœ্নাহু ইয়া’তী ইয়াওমাল কিয়ামাতি শাফিআন লিআসহাবিহী” তোমরা পবিত্র কুরআন তেলাওয়াত করো। কেননা কিয়ামতের দিন এই কোরআন তার পাঠকের জন্য সুপারিশ করবে। (মুসলিম শরীফ প্রথম খন্ড)
(৫) হযরত আনাস রাদিয়াল্লাহু তা’আলা আনহু থেকে বর্ণিত রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেন, যে ঘরে কুরআন শরীফ তেলাওয়াত করা হয়, সে ঘরে আল্লাহ তা’আলা অনেক কল্যাণ ও বরকত নাযিল করেন। যে ঘরে পবিত্র কুরআন তেলাওয়াত করা হয় না, সে ঘরে কল্যাণ ও বরকত নাযিল হয় না। (সুনানে দারেমী)
(৬) অন্য হাদীসে বর্ণিত হয়েছে, রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম ইরশাদ করেন “মানকরা’আ হারফান মিনকিতাবিল্লাহি ফালাহু বিহি হাসানাতুন ওয়াল হাসানাতু বি আশরি আমসালিহা লা আকুল আলিফ লাম মীম হারফুন ওয়ালা কিন আলিফুন হরফুন লামুন হরফুন মীমুন হরফুন” অর্থাৎ যে ব্যক্তি পবিত্র কুরআনের একটি হরফ পাঠ করবে তাকে একটি নেকি প্রদান করা হবে প্রতিটি নেকি দশটি নেকির সমান। আমি একথা বলছি না যে আলিফ-লাম-মীম সবগুলো মিলে এক হরফ বরং আলিফ হরফ লাম মিম আরেক হরফ। (সহিহ্ তিরমিজি)
(৭) রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ইরশাদ করেন, যে অন্তরে পবিত্র কুরআনের কিছু অংশ নেই সে অন্তর যেন অনাবাদ ঘর। (সুনানে দারেমী)
(৮) রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম আরো ইরশাদ করেন, যে ব্যক্তি পবিত্র কোরআন তেলাওয়াত করে এবং তদনুসারে আমল করে, কিয়ামতের দিন তার পিতা-মাতাকে এমন এক উজ্জ্বল মুকুট পরানো হবে যা দুনিয়ার কোন ঘরের মধ্যে অবস্থানরত সূর্যালোকের অধিক উজ্জ্বল হবে। (আবু দাউদ) পবিত্র কুরআন তেলাওয়াত মানবত্মাকে পরিশুদ্ধ করে হৃদয়ে জাগ্রত হয় অফুরন্ত অনাবিল প্রশান্তি।
মানুষের ইহলৌকিক কল্যাণ ও পারলৌকিক মুক্তির দিগদর্শণ মুসলিম উম্মাহর জন্য শ্রেষ্ঠতম নিয়ামত আল্লাহর বাণী পবিত্র ‘আল-কুরআন’। এটি বিশ^মানবতার মুক্তিদূত মহানবী হযরত মুহম্মদ (সাঃ) এর প্রতি আল্লাহর কাছ থেকে জিবরাইল ফেরেশতা মারফত সুদীর্ঘ ২৩ বছরে অবতীর্ণ হয়।
মোবারক এ মাহিনায় বেশি বেশি করে কুরআন তেলাওয়াত, জিকির-আজকার, তাসবিহ-তাহলিল, তাহাজ্জুদ-নফল সালাত আদায় করা একান্ত জরুরী। আমাদের কি কারো ইচ্ছে করে না যে আমিই সর্বোত্তম ব্যক্তি বিবেচিত হই। আর তা ঠিক তখনই সম্ভব হবে যখন নিজে বিশুদ্ধভাবে কুরআন শিখে অন্যকে শিখাবো।
লেখক ঃ বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ, প্রাবন্ধিক, ইসলামি অর্থনীতিবিদ, বহুগ্রন্থ প্রণেতা ও ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রকাশিত “মিশকাত শরীফ” এর বাংলা অনুবাদক।
 

এই বিভাগের আরো খবর